11:03 pm |আজ বৃহস্পতিবার, ৯ই বৈশাখ ১৪২৮ বঙ্গাব্দ | ২২শে এপ্রিল ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

সংবাদ শিরোনাম:
মানিকগঞ্জে যুবলীগের পক্ষে ইফতার বিতরণ করলেন এমপি দুর্জয় নড়াইলে পুলিশের উপর দুর্বৃত্তদের হামলা লকডাউনে বিপাকে রিক্সা ও ভ্যান চালকরা অনিয়ম দূর করতে তিন পার্বত্য জেলায় নিয়োগের বিষয়টি নিবিড় পর্যবেক্ষণ করার নির্দেশ ধান কাটা নিয়ে দুই পক্ষের সংঘর্ষ নিহত-১, দুই মহিলাসহ আহত ৮, গ্রেফতার-৫ সেনবাগে সম্পত্তিগত বিরোধের কারণে সন্ত্রাসী কায়দায় হামলা মানিকগঞ্জে গ্রীন ডিফেন্ডার বিডি সামাজিক সংগঠনের উদ্দ্যোগে বৃক্ষ রোপ সাভারের ধরেন্ডা এলাকায় শিশু ধর্ষনের অভিযোগে সমর রোজারিও আটক গাইবান্ধায় “হাসান হত্যার প্রতিবাদ মঞ্চ” এর নেতৃবৃন্দের মতবিনিময় সভা নাঙ্গলকোটে নিখোঁজের তিনদিন পর পুকুর থেকে বৃদ্ধার লাশ উদ্ধার
প্রধানমন্ত্রীর কাছে মুজাক্কির হত্যার সুষ্ঠু বিচারের দাবি পরিবারের

প্রধানমন্ত্রীর কাছে মুজাক্কির হত্যার সুষ্ঠু বিচারের দাবি পরিবারের

প্রতিনিধি,নোয়াখালী : নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার বসুরহাট পৌরসভার মেয়র আবদুল কাদের মির্জা ও সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান বাদলের সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষ ও গোলাগুলির ঘটনায় গুলিবিদ্ধ হয়ে নিহত সাংবাদিক বুরহান উদ্দিন মুজাক্কির হত্যায় প্রধানমন্ত্রীর কাছে সুষ্ঠু বিচারের দাবিতে সংবাদ সম্মেলন করেছেন তার পরিবার। বৃহস্পতিবার সকাল ১০টায় নোয়াখালী জেলা প্রেস ক্লাবে অনুষ্ঠিত সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন নিহতের বড় ভাই নূর উদ্দিন। লিখিত বক্তব্যে নূর উদ্দিন বলেন, মুজাক্কির সাংবাদিকতা পেশার পাশাপাশি সামাজিক ও মানবিক বিভিন্ন কর্মকাণ্ডে জড়িত ছিলেন। নিয়মিত রক্তদান করতেন মুজাক্কির। গত শুক্রবার উপজেলার চাপরাশিরহাট পূর্ব বাজারে আওয়ামী লীগের দুপক্ষের সংঘর্ষের সময় দায়িত্ব পালন করতে গিয়ে গুলিবিদ্ধ হয়ে আহত হন তিনি। সে বাঁচার জন্য বার বার আকুতি জানালেও উপস্থিত স্থানীয় লোকজন,জনপ্রতিনিধি ও পুলিশ সদস্যরা তাকে বাঁচাতে এগিয়ে আসেনি। গুলিবিদ্ধ হয়ে দীর্ঘসময় বাজারে পড়ে থাকার কারণে অতিরিক্ত রক্তক্ষরণে মুজাক্কির মৃত্যুবরণ করেন বলে জানিয়েছেন ঢামকের চিকিৎসক। নূর উদ্দিন আরও বলেন, ‘আমার ভাই পড়ালেখার পাশাপাশি সংবাদিকতা করতেন। কিন্তু সে কোনো দলের কর্মকাণ্ডের সাথে জড়িত ছিল না।’
বড় ছেলের বক্তব্য শেষ হলে নূর উদ্দিনের মা কান্না জড়িত কণ্ঠে বলেন, ‘আমার আদরের ছোট ছেলে মারা যাওয়ার পর আত্মীয় স্বজনের মাধ্যমে গতকাল একটি ভিডিও দেখেছিলাম। ভিডিওতে দেখা যায় গত কয়েক মাস আগে একজন ব্যক্তি তাকে অকথ্য ভাষায় গালাগালি করে মারধর করে। ওই হামলাকারী তাকে বলে ‘তোর কোন বাবা আছে? আমি ওই হামলাকারীকে গ্রেপ্তার করার জন্য প্রশাসনকে অনুরোধ করছি।
সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত মুজাক্কিরের ভগ্নিপতি আবদুস সাত্তার তার শ্যালকের হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় আইনি ব্যবস্থা নেবেন বলে জানিয়েছেন।
মুজাক্কিরের বাবা মাওলানা নূরুল হুদা মো. নোয়াব আলী মাস্টার জানান, ওইদিন ঘটনাস্থলে তিনি বা তার পরিবারের কেউ উপস্থিত ছিলেন না। তাই কারা এ হত্যাকাণ্ড ঘটিয়েছে তারা দেখেনি। তবে যারা এ হত্যার সঙ্গে জড়িত সুষ্ঠু তদন্তের মাধ্যমে প্রকৃত খুনিদের গ্রেপ্তার করে বিচারের দাবী করেন নোয়াব আলী।খুনিদের ফাঁসির জন্য প্রধানমন্ত্রীর কাছে আবেদন জানান তিনি।
উল্লেখ্য, গত শুক্রবার উপজেলার চাপরাশিরহাট পূর্ব বাজারে বসুরহাট পৌরসভার মেয়র কাদের মির্জা ও সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান বাদলের সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষ ও গোলাগুলির ঘটনা ঘটে। এ সময় পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে পুলিশও কয়েক রাউন্ড টিয়ারসেল ও শটগানের গুলি ছোড়ে। ঘটনার ছবি ও ভিডিও ধারণ করতে গিয়ে ত্রিমুখী সংঘর্ষের মুখে পড়ে গুলিবিদ্ধ হন সাংবাদিক মুজাক্কিরসহ ৭-৮জন।পরে আশংকাজনক অবস্থায় মুজাক্কিরকে প্রথমে নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতাল ও পরে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে গত শনিবার রাত ১০ টা ৪৫ মিনিটে তার মৃত্যু হয়।মুজাক্কির অনলাইন নিউজ পোর্টাল বার্তা বাজারের নোয়াখালী প্রতিনিধি ছিলেন।
আলোকিত প্রতিদিন/২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২১ /এম.জে

এই পোস্টটি আপনার সামাজিক মিডিয়াতে শেয়ার করুন

All rights reserved. © Alokitoprotidin
এস কে. কেমিক্যালস এগ্রো লি: এর একটি মিডিয়া প্রতিষ্ঠান