10:43 pm |আজ বৃহস্পতিবার, ১২ই ফাল্গুন ১৪২৭ বঙ্গাব্দ | ২৫শে ফেব্রুয়ারি ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

সংবাদ শিরোনাম:
ইইডি রাজশাহীর তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলীর পদ এক বছর থেকে শূন্য সুনামগঞ্জে ফ্রি রক্তের গ্রুপ নির্ণয় ক্যাম্পেইন অনুষ্ঠিত রাজশাহী মেট্রোপলিটন পুলিশের অভিযানে গ্রেফতার ৩৪ চুয়েটে গণিত বিভাগের আয়োজনে ‘ম্যাটল্যাব ও ল্যাটেক্স’ বিষয়ক কর্মশালা অনুষ্ঠিত সাভার ইউনিয়নে প্রধানমন্ত্রীর উপহার ভিজিডি এর চাউল বিতরণ কর্মসূচির উদ্বোধন প্রধানমন্ত্রীর কাছে মুজাক্কির হত্যার সুষ্ঠু বিচারের দাবি পরিবারের সাদুল্লাপুরে জাতীয় পরিচয়পত্র স্মার্ট কার্ড বিতরণ সাংবাদিক মুজাক্কির হত্যা: রাজশাহীতে মানববন্ধন ও সমাবেশ চট্টগ্রাম কাস্টমসের নিলামে বিভিন্ন পন্যসহ শতাধিক সিএনজি রিকশা সুনামগঞ্জে কালের সাক্ষী শত বছরের পুরনো ঐতিহ্যবাহী পাগলা বড় মসজিদ
দিনাজপুর গোবিন্দগঞ্জ আঞ্চলিক সড়ক নির্মাণ কাজের অগ্রগতি প্রশংসনীয়

দিনাজপুর গোবিন্দগঞ্জ আঞ্চলিক সড়ক নির্মাণ কাজের অগ্রগতি প্রশংসনীয়

পি.সি দাস, দিনাজপুর : যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নয়নে উত্তরাঞ্চলের সড়ক মহাসড়কের কাজ দ্রুত গতিতে এগিয়ে চলছে। দিনাজপুর গোবিন্দগঞ্জ আঞ্চলিক সড়কের নির্মাণ কাজ প্রায় ৭০ ভাগ সম্পন্নর পথে। ১০৭ কি.মি. আঞ্চলিক সড়ক নির্মাণ কাজ ৭০ ভাগ এগিয়ে চলছে দিনাজপুর গোবিন্দগঞ্জ মহাসড়কের। নান্দনিক পরিবেশে যুগপযোগী একটি মডেল সড়ক নির্মাণের লক্ষ্যে এরই মধ্যে হাট বাজার গুলোর রাস্তার মাঝখানে মনোরম ডিভাইডার নির্মাণের ফলে যাত্রীদের মনোযোগ দৃষ্টি আকর্ষণ করা হয়েছে।

দিনাজপুর সড়ক ও জনপথ অধিদপ্তরের নির্বাহী প্রকৌশলী সুনিতী চাকমা জানান, গত বছর ২০২০ইং সালের জানুয়ারি মাস থেকেই দিনাজপুর গোবিন্দগঞ্জ আঞ্চলিক সড়কের ১০৭ কি.মি. রাস্তা পূর্ণ নির্মাণের কাজ শুরু করা হয়। এই রাস্তায় ৯টি প্যাকেজের মধ্যে ৮টি প্যাকেজ দিনাজপুর জেলায় এবং ১টি প্যাকেজ গাইবান্ধা জেলার সড়ক ও জনপথ বিভাগের তত্ত্বাবধানে নির্মাণ কাজ চলছে। ১০৭ কি.মি. রাস্তায় ১০৪টি কংক্রিট মজবুত টেকসই ব্রীজ কাম-কালভার্ট নির্মাণ করা হয়েছে। রাস্তা নির্মাণে ৯০০ কোটি টাকা যোগাযোগ মন্ত্রণালয় থেকে বরাদ্দ রয়েছে। এর মধ্যে অতিরিক্ত ৩ কোটি টাকা রাস্তার দুই পার্শ্বে বিদ্যুৎ ও টেলিফোনের পোল সরানো এবং অবৈধ অবকাঠামো অপসারণের কাজে ব্যয় করা হয়েছে।

তিনি আরো জানান, রাস্তার মোড় গুলিতে যানবাহন চলাচল গতি নিয়ন্ত্রণ করতে ডিভাইডার নির্মাণের জন্য সিডিউলে নির্দেশনা রয়েছে। যানবাহনের গতি নিয়ন্ত্রণ করতে রাস্তা নির্মাণের পূর্বেই একটি বিশেষজ্ঞ টিমের মাধ্যমে প্রত্যেকটি রাস্তার মোড়ে ড্রোন চালিয়ে যানবাহনের গতি কত কি.মি. বেগে চলাচল করবে তা সংকেতের মাধ্যমে চালকদের জানানোর জন্য ড্রোনের জরিপ অনুযায়ী নির্দেশ দেওয়া থাকবে। প্রত্যেকটি গাড়ির চালক যদি ঐ নির্দেশনা অমান্য করে তবে বিআরটিএ এর আইন অনুযায়ী দন্ডিত হবে। মহাসড়কে যানবাহন চলাচলে দূর্ঘটনা যাতে না বাড়ে সেজন্য এই সব ব্যবস্থা করা হয়েছে। রাস্তাটি পুন:নির্মাণ শেষ হলে এই মহাসড়ক দিয়ে ভারী যানবাহন সহ সকল প্রকার যানবাহন চলাচল উন্মুক্ত হবে। পাশাপাশি ঢাকা থেকে পঞ্চগড় গামী ঠাঁকুরগাওগামী দূর পাল্লার যানবাহনগুলি এই রাস্তা দিয়ে দ্রুত গতিতে গন্তব্যস্থলে পৌঁছাতে পারবে এবং সময় কম লাগবে।

 

আলোকিত প্রতিদিন/২৪ জানুয়ারি-২০২১/জেডএন

এই পোস্টটি আপনার সামাজিক মিডিয়াতে শেয়ার করুন

All rights reserved. © Alokitoprotidin
এস কে. কেমিক্যালস এগ্রো লি: এর একটি মিডিয়া প্রতিষ্ঠান