1:28 pm |আজ বৃহস্পতিবার, ১২ই জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ | ২৬শে মে ২০২২ খ্রিস্টাব্দ | ২৪শে শাওয়াল ১৪৪৩ হিজরি

সংবাদ শিরোনাম:
না ফেরার দেশে চলে গেলেন সত্যাশ্রয়ী মুক্তবুদ্ধি চর্চার অগ্রপথিক সেলিম বাগেরহাটে ট্রলির ধাক্কায় ২ জন নিহত লক্ষ্মীপুরে চাঁদাবাজির মামলা করায় প্রবাসীর বাড়ির  প্রাচীর ও ঘর ভাঙচুর, হুমকির অভিযোগ ক্রেতার অভাবে বিপুল পরিমাণ তেল নিয়ে সাগরে ভাসছে রাশিয়ার জাহাজ ফটিকছড়িতে ৭৮টি চোরাই মোবাইল ও কার সহ দুই যুবক গ্রেপ্তার  কুড়িগ্রামের রৌমারীতে মা ও শিশুকে হত্যার ঘটনায় ২ আসামীকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব সাভারে জন্মদিনের কথা বলে বন্ধুদের নিয়ে প্রেমিকাকে গণধর্ষণ ঘিওরে স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণ মামলায় এক যুবককে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড সমুদ্রে ট্রলার ডুবি, ১০ ঘণ্টা পর ১৫ জেলে জীবিত উদ্ধার লাইটার জাহাজ ডাকাতির ঘটনায় আগ্নেয়াস্ত্রসহ ৫ জলদস্যু আটক




সর্বোচ্চ আক্রান্তের দিনেই লকডাউন তোলার ঘোষণা পাকিস্তানের

সর্বোচ্চ আক্রান্তের দিনেই লকডাউন তোলার ঘোষণা পাকিস্তানের

ফাইল ফটো




:: ডেস্ক প্রতিদিন::
পাকিস্তানে করোনাভাইরাস আক্রান্তের সংখ্যায় উল্লম্ফনের দিনই লকডাউন তোলার ঘোষণা দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। শনিবার থেকে ধাপে ধাপে লকডাউন তুলে নেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন তিনি।
বৃহস্পতিবার টিভিতে এক ভাষণে ইমরান এ ঘোষণা দেন। এদিন পাকিস্তানে ১ হাজার ৫২৩ জন কোভিড-১৯ আক্রান্ত হয়েছে। একদিনে এ সংখ্যা সর্বোচ্চ।
এ নিয়ে পাকিস্তানে মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ২৪,০৭৩ জনে এবং মারা গেছে ৫৬৪ জন। করোনাভাইরাসের বিস্তার ঠেকাতে দেশটিতে পাঁচ সপ্তাহ ধরে লকডাউন চলছে।
এবার তা তুলে নেওয়ার ঘোষণায় প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান বলেন, “এমন সিদ্ধান্ত নেওয়া হচ্ছে; কারণ, দেশের বিপুল সংখ্যক গরিব মানুষ এবং শ্রমিকরা লকডাউনের মধ্যে আর তাদের জীবিকা নির্বাহ করতে পারছে না। আমরা এখন লকডাউন শেষ করার সিদ্ধান্ত নিচ্ছি। আমরা জানি এমন এক সময়ে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হচ্ছে যখন আক্রান্তের সংখ্যা ঊর্ধ্বমুখী…কিন্তু আমরা যেমনটি আশা করেছিলাম, পরিস্থিতি আসলে তেমন হচ্ছে না।”
পাকিস্তান লকডাউনের মধ্যে আর চলতে পারছে না জানিয়ে ইমরান বলেন, “আমরা যখন লকডাউন শুরু করেছিলাম তখনই দিনমজুরদের কথা ভেবে শঙ্কায় ছিলাম যে, এই দিন আনা দিন খাওয়া মানুষগুলোর কি হবে?”
লকডাউন ধাপে ধাপে তুলে নেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন ইমরান। তবে রোগটি যাতে নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে না যায় সেজন্যও জনগণকে সতর্ক করে দিয়ে সবাইকে সচেতন থাকতে বলেছেন তিনি।
বিধিনিষেধ উঠে গেলে আক্রান্তের সংখ্যা নিশ্চিতই বাড়বে, জটিল রোগীর সংখ্যা্ও বেড়ে যাবে বলে বার্তা সংস্থা রয়টার্সকে জানিয়েছেন পাকিস্তানের ‘ইয়াং ডক্টরস অ্যাসোসিয়েশন’ এর সেক্রেটারি সালমান কাজমি। তিনি বলেন, “হাসপাতালগুলোতে যে চাপ সৃষ্টি হবে তা নিয়েই আমরা উদ্বিগ্ন।”
পাকিস্তানের পরিকল্পনামন্ত্রী আসাদ উমর বলেছেন, প্রথমিকভাবে ছোট ছোট বাজার এবং দোকানপাট বিকাল ৫ টা পর্যন্ত খুলে দেওয়া হবে। তবে বড় বড় মল এবং বেশি লোকসমাগম হয় এমন সব জায়গা আপাতত বন্ধ থাকবে।
আন্তনগর পরিবহন এবং রেলওয়ে চালু করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে পরে। স্কুলগুলোও ১৫ জুলাই পর্যন্ত বন্ধ রাখা হবে। প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান বলেছেন, পরিস্থিতি খারাপের দিকে চলে গেলে কড়াকড়ি আবার আরোপ করা হতে পারে।

এই পোস্টটি আপনার সামাজিক মিডিয়াতে শেয়ার করুন











All rights reserved. © Alokitoprotidin
এস কে. কেমিক্যালস এগ্রো লি: এর একটি মিডিয়া প্রতিষ্ঠান