আজ শুক্রবার, ৪ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ ।   ১৯ জুলাই ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

পুরাণ ঢাকা থেকেই নেতৃত্ব চায় মহানগর দক্ষিণ বিএনপির তৃনমূল 

-Advertisement-

আরো খবর

- Advertisement -
- Advertisement -

ইমরান হোসেন (বিশেষ প্রতিনিধি): দলকে আন্দোলনমুখী করতে সাংগঠনিক প্রক্রিয়া শুরু করেছে বিএনপি।এর অংশ হিসেবেই কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটিতে বড় রদ বদলের পাশাপাশি ঢাকাসহ চার মহানগর কমিটি বিলুপ্ত করা হয়েছে।
বিএনপি সূত্র বলছে, দ্রুত ঢাকা মহানগর উত্তর দক্ষিণ বিএনপি সহ ছাএদল ঢাকা মহানগর চার শাখার কমিটি গঠন করা হবে।
নব গঠিত কমিটি গঠন নিয়ে ঢাকা মহানগর বিএনপির নেতারা বেশ দৌড়ঝাপ শুরু করে দিয়েছে এবং ঢাকার  তৃনমুলের নেতাকর্মীরা বিভিন্ন অংক কষতে শুরু করেছে, কিভাবে কমিটি গঠন হলে দল লাভবান এবং সাংগঠনিক ভাবে শক্তিশালী ও এগিয়ে যাবে এবং দল তার কাঙ্ক্ষিত লক্ষ্যে পৌঁছবে।
ঢাকায় তৃনমুলের একাধিক নেতাকর্মীদের সাথে কথা বলে জানা যায় তারা বলছেন,বিগত দিনের আন্দোলন সংগ্রামে ঢাকা মহানগর দক্ষিণের কমিটি খুব গুরুত্ব বহন করে। আন্দোলন সংগ্রামের ইতিহাস লক্ষ্য করলে দেখা যাবে, ঢাকা থেকেই আন্দোলন সংগ্রাম গড়ে উঠেছিল। ৯০ এর আন্দোলন কিংবা তার পরবর্তী যত আন্দোলন সংগ্রাম গড়ে উঠেছে, তা কিন্তু পুরান ঢাকার নেতৃত্ব থেকেই আন্দোলন শুরু হয়েছে। বর্তমানে সঠিক নেতৃত্বের অভাবে পুরান ঢাকা থেকে রাজপথে  আন্দোলন শুরু করে চাঙা করা সম্ভব হয়নি।
তৃনমুলের ঐ নেতাকর্মীরা জানান, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ বিএনপির সদ্য বিলুপ্ত কমিটির সদস্য চকবাজার থানার সাধারণ সম্পাদক মোঃ শহিদুল ইসলাম বাবুলকে সামনের নবগঠিত মহানগর কমিটির গুরুত্বপূর্ণ পদে দায়িত্ব দিলে দল সাংগঠনিক ভাবে শক্তিশালী ও আন্দোলনমুখী হবে এবং দল তার লক্ষ্যে পৌঁছাতে পারবে। কারন রাজপথের ত্যাগী পরিশ্রমী সাহসী নেতা শহিদুল ইসলাম বাবুল বিগত দিনের আন্দোলন সংগ্রামে সাহসিকতার সহিত দলঘোষিত প্রতিটি কর্মসূচি পালন করেছেন এবং তিনি কর্মী বান্ধব নেতাও বটে।
জাতীয়তাবাদী ছাএদলের রাজনীতি নিয়ে হাতে খড়ি এ নেতা পরবর্তীতে জাতীয়তাবাদী স্বেচ্ছাসেবকের কেন্দ্রীয় কমিটির সহ সাধারণ সম্পাদক ছিলেন। ২৯ নং ওয়ার্ড বিএনপির সভাপতি থাকা অবস্থায় তিনি ( সাবেক ৬৫) এই ওয়ার্ডের নির্বাচিত কমিশনার ছিলেন । বৃহত্তর লালবাগ থানা বিএনপির যুগ্ম আহবায়ক ও চকবাজার থানা বিএনপির আহবায়কের দায়িত্বও পালন করেছেন এ নেতা। সর্বশেষ চকবাজার থানা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক ও সদ্য বিলুপ্ত ঢাকা মহানগর দক্ষিণ বিএনপি কমিটির অন্যতম সদস্য ছিলেন বাবুল।
রাজপথের আন্দোলন সংগ্রাম করতে গিয়ে বর্তমান আওয়ামী সরকারের রোষানলে পড়ে ৬০ টিরও অধিক মামলা হয়েছে তার নামে। বেশ কয়েকবার জেলও খেটেছেন তিনি। ২০২২ সালের ৭ ডিসেম্বর গ্রেফতার হয়ে ৪৭ দিন এবং ২০২৪ সালের ১২ এপ্রিল গ্রেফতার হয়ে ১ মাস কারাবরণ করেন।
এ বিষয়ে শহীদুল ইসলাম বাবুলের সাথে কথা বললে তিনি বলেন, শহীদ প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমানের আদর্শকে বুকে ধারণ করে, বিএনপি চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়া ও বিএনপি ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের নির্দেশে দলের জন্য কাজ করছি। বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তিই এখন আমাদের জন্য মুখ্য বিষয়। বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তিই আমাদেরকে গণতন্ত্র এনে দিবে। মানুষ ফিরে পাবে ভোট ও ভাতের অধিকার।  স্বাধীনভাবে কথা বলতে পারবে। আর কমিটি গঠনের বিষয়টি সবকিছু বিবেচনা করে দল তার সঠিক সিদ্ধান্ত নিবে বলে আমি আশাবাদী।
আলোকিত/২৮/০৬/২০২৪/আকাশ

- Advertisement -
- Advertisement -