আজ শুক্রবার, ৪ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ ।   ১৯ জুলাই ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

লোহাগড়ার প্রাণ খ্যাত নবগঙ্গা নদীর কচুরিপানা অপসারণ করে প্রসংশায় ভাসছেন: মাশরাফি

-Advertisement-

আরো খবর

জাহিদুল হক রনি, নড়াইল
নড়াইলের লোহাগড়া উপজেলা দিয়ে প্রবাহিত লোহাগড়ার প্রাণ খ্যাত নবগঙ্গা নদীর কচুরিপানা অপসারণ এর নির্দেশনা দিয়ে স্থানীয় মৎসজীবী লীগের কর্মীদের মাধ্যমে নদীর কচুরিপানা পরিষ্কার করে এলাকার সর্বমহলের প্রসংশায় ভাসছেন নড়াইল -২ আসনের মাননীয় সংসদ সদস্য মাশরাফি বিন মুর্তজা এমপি। লোহাগড়াবাসীর দীর্ঘদিনের দাবির পরিপ্রেক্ষিতে গত জুলাই মাসে লোহাগড়া উপজেলা মৎসজীবী লীগের আহবায়ক শ্রীকান্ত বিশ্বাস কে লোহাগড়ার প্রাণ খ্যাত নবগঙ্গা নদীর কচুরিপানা অপসারণের নির্দেশনা দেন। সংসদ সদস্যের নির্দেশে উপজেলা মৎসজীবী লীগের আহবায়ক শীকান্ত বিশ্বাস তার দলীয় নেতা-কর্মীদের নিয়ে অক্লান্ত পরিশ্রম করে কাশিপুর হতে কুন্দশী পর্যন্ত প্রায় পাঁচ কিলোমিটার নদীর কচুরিপানা অপসারণ করে। এ ব্যাপারে মৎসজীবী লীগের আহবায়ক শ্রীকান্ত বিশ্বাস বলেন, নবগঙ্গা নদীতে কচুরিপানায় ভরে থাকায় আমাদের এলাকাবাসী দুর্ভোগের সম্মুখীন হচ্ছিল, নদীতে মাছ ধরা, গোসল করা, বাসার রান্না বাড়ার করার জন্য পানির সমস্যা ছিল। বিষয়টি নিয়ে মাননীয় সংসদ সদস্য মহোদয়কে জানারে তিনি আমাকে নদীর কচুরিপানা পরিষ্কার করতে বলেন। আমি আমার দলীয় নেতা-কর্মীদের সহযোগিতায় নবগঙ্গা নদীর কাশিপুর হতে কুন্দশী অংশ পর্যন্ত কচুরিপানা অপসারণ করেছি। এখনো কচুরিপানা অপসারণ চালিয়ে যাচ্ছি। লোহাগড়া উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক আহবায়ক ও নড়াইল জেলা যুবলীগরে আহবায়ক কমিটির সদস্য শেখ সদর উদ্দিন শামীম বলেন, নবগঙ্গা নদী কচুরিপানাতে ভরে নদীর পানি দুষিত এবং স্বাভাবিক ধারা ব্যহত হচ্ছিল, যার জন্য নদী পাড়ের মানুষ ক্ষতির মুখে পড়ে। এজন্য আমি ও শ্রীকান্ত দাদাসহ অন্যান্য নেতৃবৃন্দ লোহাগড়াবাসীর পক্ষে মাননীয় সংসদ সদস্য মহোদয়ের কাছে নবগঙ্গা নদীর কচুরিপানা অপসারণের জোর দাবী জানাই। সংসদ সদস্য মহোদয় আমাদের দাবির প্রতি একমত হয়ে কচুরিপানা অপসারণের নির্দেশনা দেন।স্থানীয় প্রবীণ মৎসজীবী জিতেন, রনজিত,শংকর, মধুসহ অনেকে বলেন, নদীতে কচুরিপানার জন্য আমরা ঠিকমত নৌকা চালাতে পারতাম না,গোসল করতে সমস্যা হতো,আমরা নদীর পাড়ের বাসিন্দা, আমাদের নিত্যকাজে নদীর পানি ব্যবহার করতে হয়, নদীতে কচুরিপানা থাকায় আমরা সেটা পারছিলাম না। গরীবের ক্যাপ্টেন সংসদ সদস্য মাশরাফি বিন মুর্তজা কচুরিপানা পরিষ্কার করায় আমরা তাকে ধন্যবাদ জানাই।লোহাগড়া পৌরসভার বাসিন্দা যুবলীগ নেতা শিকদার জিয়াউর রহমান ও বিএম আবুল কাশেম বলেন, মাননীয় সংসদ সদস্য মহোদয়কে অংসখ্য ধন্যবাদ এরকম মহৎ উদ্যোগ গ্রহণ করার জন্য।
আলোকিত প্রতিদিন/এপি
- Advertisement -
- Advertisement -