সাভারে যৌতুকের টাকা না পেয়ে স্ত্রীকে নির্যাতন,মামলা করায় চরম হুমকির মুখে

মো: আলী হোসেন, সাভার প্রতিনিধি: সাভারে যৌতুকের দাবীতে স্ত্রীকে নির্যাতনের অভিযোগ উঠেছে ডা: মো:আবু তাহের মিয়া,ইমারজেন্সি মেডিক্যাল অফিসার (EMO),নিউরো সার্জারী বিভাগ,বিএসএমএসইউ,শাহবাগ,ঢাকা, এর বিরুদ্ধে।বাদী মামলা করায় চরম হুমকির মুখে রয়েছে।
১৬ই মে বৃহস্পতিবার সকালে ডা:ফারজানা সারোয়ার বাদী হয়ে সাভার মডেল থানায় একটি সাধারণ ডাইরী করেন। ডা:ফারজানা সারোয়ার জানান,তার স্বামী  বিবাহের পর থেকে বিভিন্ন সময় তার কাছে যৌতুক দাবী করে আসছে।যৌতুকের টাকা দিতে অস্বীকার করায় তাকে শারীরিক ও মানসিক ভাবে নির্যাতন করে আসছে বলে অভিযোগ করেন।তিনি আরও জানান,উক্ত বিষয়ে তার স্বামীর বিরুদ্ধে বাদী বিজ্ঞ নারী-শিশু আদালত ,ঢাকায় পিটিশন মামালা নং-১৩৫/১৯ দায়ের করেন।যাহা বিজ্ঞ আদালতে চলমান রয়েছে।মামলাটি প্রত্যাহার এর জন্য তার স্বামী তাকে বিভিন্ন সময় হুমকি প্রদান করে আসছে বলে অভিযোগ করেন।
ডা:আবু তাহের মিয়া মুঠোফোনে বলেন আমি মিটিংয়ে আছি পরে কথা বলবো। সাধারণ ডাইরীতে উল্লেখ রয়েছে,বাদী ডাঃ ফারজানা সারোয়ার,পিতা:মৃত গোলাম সারোয়ার ,সাং-আনন্দপুর ,গেন্ডা,সাভার ঢাকাকে বিগত প্রায় ১৩ বছর পূর্ব বিবাদী মো:আবু তাহের মিয়া(৪০),পিতা-মৃত মুজিব মিয়া,সাং-আনন্দপুর গেন্ডা,সাভার ঢাকা বিবাহ করে।তাদের দাম্পত্য জীবনে দুই ছেলে হাসান (৮) ও হোসেন(৮)দ্বয় রয়েছে।বিবাহের পর হতে উক্ত বিবাদী বিভিন্ন সময় যৌতুকের দাবীতে বাদীকে মারধর ও অত্যাচার করে আসছে। উক্ত বিষয়ে উল্লেখিত বিবাদীর বিরুদ্ধে বাদী বিজ্ঞ নারী-শিশু আদালত ,ঢাকায় পিটিশন মামালা নং-১৩৫/১৯ দায়ের করেন।যাহা বিজ্ঞ আদালতে চলমান রয়েছে।
উল্লেখ আছে,উক্ত মামলায় বিবাদীর সাজা হওয়ার ভয়ে মামলাটি প্রত্যাহার করার জন্য উক্ত বিবাদীকে চাপ সৃষ্টি করছে। গত ১২/০৫/১৯ তারিখ বিকাল আনুমানিক ৫ টার দিকে বাদীর স্বামী তাদের ছেলে সন্তানদের সামনে পিটিশন মামলাটি প্রত্যাহার করার জন্য চাপ সৃষ্টি করে।বাদী মামলা প্রত্যাহার না করলে বিবাদী তাকে জানে  মেরে ফেলবে বলে হুমকী প্রধান করছে বলে অভিযোগে উল্লিখ রয়েছে।
এ বিষয়ে সাভার মডেল থানার এস আই সেলিম রেজা জানান,ভূক্তভোগি থানায় একটি সাধারণ ডায়রী করেছেন।অভিযোগ এর কপি এখনও পর্যন্ত হাতে পাইনি।হাতে পেলে তদন্ত করে অভিযোগ এর সত্যতা থাকলে আইন গত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।
আলোকিত প্রাতদিন/১৭মে১৯/এমএ
 

Attachments area
ফেসবুক থেকে মন্তব্য করুন