আশুলিয়ায় চলন্ত বাসে ডাকাতি | আলোকিত প্রতিদিন

আশুলিয়ায় চলন্ত বাসে ডাকাতি

Spread the love

সফি সুমন, আশুলিয়া: আশুলিয়ার নবীনগর-চন্দ্রা মহাসড়কে দূর পাল্লার চলন্ত বাসে ডাকাতির ঘটনা ঘটেছে। এসময় স্থানীয়দের সহায়তায় বাসসহ সন্দেহভাজন অবস্থায় ডাকাতির কবলে পড়া বাসটি আটক করে আশুলিয়া থানা পুলিশ। এসময় ডাকাতির কবলে পড়ে অন্তত নারী ও শিশুসহ ১০ যাত্রী আহত অবস্থায় উদ্ধার করা হয়। সন্দেহভাজন এক ডাকাত আটক করলেও, সে বিষয়ে বিস্তারিত কিছুই জানায়নি পুলিশ। ঘটনার পর বাসের চালক, হেলপার ও সুপারভাইজার পলাতক রয়েছে।

সোমবার রাত সাড়ে ১০ টার দিকে আশুলিয়ার পল্লীবিদ্যুৎ এলাকায় রাস্তায় থাকা জনতা ও আশুলিয়া থানা পুলিশের সহয়তায় বাসটিকে আটক করা হয়েছে।

বাসে থাকা যাত্রীরা জানান, রাজধানীর গাবতলী থেকে ছেড়ে আসা মাশফি পরিবহনের (ঢাকা মেট্রো-ব-১৫-০৪৯০) একটি দূর পাল্লার বাস কুড়িগ্রামের উদ্দেশ্যে কয়েকজন যাত্রী নিয়ে রওনা হয়। পরে আশুলিয়ার বাইপাইল থেকে যাত্রী বেশে ডাকাত উঠে বাসে। পরে পিস্তল দিয়ে চালককে জিম্মী করে যাত্রীদের হাত পা বেঁধে মারধর করে। মূল্যবান জিনিসপত্র ছিনিয়ে নেয়। শ্রীপুর দিয়ে ঘুড়ে নবীনগর দিকে যওয়ার পথে পল্লীবিদ্যুৎতে পৌছালে যাত্রীদের ডাকা চিৎকারে রাস্তায় জনতায় বাসটি আটক করা হয়। এসময় কয়েকজন ডাকাত বাসের জানালা দিয়ে লাফিয়ে পালিয়ে যায়। এসময় নারী যাত্রী লাঞ্চিতের অভিযোগও তোলেন এক নারী যাত্রী।

এঘটনায় আশুলিয়া থানার পুলিশ পরিদর্শক (অপারেশন) মনিরুল হক ডাবলু ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, খবর পেয়ে পুলিশের একটি দল বাসটি আটক করে থানায় নিয়ে আসা হয়। এ ঘটনায় আহতের যাত্রীদের স্থানীয় হাসপাতালে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। সন্দেহভাজন একজন ডাকাতকে আটক হয়েছে। তবে তদন্ত স্বার্থে বিস্তারিত জানানো হয়নি। বাকি ডাকাতের আটক অভিযান অব্যাহত রয়েছে বলেও জানান তিনি।

আলোকিত প্রতিদিন/২৯ জানুয়ারি/আরএ

এই সংবাদ ২০৯ বার পঠিত।
ফেসবুক থেকে মন্তব্য করুন