সেনা সদস্য হত্যার বিচারের দাবীতে ঝিনাইদহে মানববন্ধন

ঝিনাইদহ সংবাদদাতা: সেনাবাহিনীর ল্যান্স কর্পোরাল সাইফুল ইসলাম হত্যার প্রতিবাদে ঝিনাইদহে মানববন্ধন হয়েছে। এসময় শত শত মানুষ এই মানববন্ধনে অংশ নেয়। বৃহস্পতিবার সকালে ঝিনাইদহ সদর উপজেলার বংকিরা গ্রামের স্কুল মোড়ে এই মানববন্ধন পালিত হয়।

মানববন্ধনে সাধুহাটী ইউনিয়নের চেয়ারম্যান কাজী নাজির উদ্দীন, ইউপি সদস্য এনামুল হক ডালু, আমিরুল ইসলাম, শুকদেব কর্মকার, বঞ্চিতজন সংগঠনের চেয়ারম্যান আনোয়ার পাশা বিদ্যুৎ, নিহত সেনা সদস্য সাইফুলের বাবা হাবিজুদ্দীন হাবু, আওয়ামীলীগ নেতা মিঠুন জোয়ারদার, আঞ্চলিক ভাষা গ্রুপের ঢাকা অফিসের কর্মকর্তা সুজয় কর্মকার, সাফওয়ান আব্দুল্লাহ, তন্ময় চক্রবর্তী, বিশ্বজিৎ ঘোষ, সাগর হোসেন ও হাজরা গ্রামের শহিদুল ইসলাম প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।

মানববন্ধনে নিহত সাইফুলের বাবা হাবিজুদ্দীন হাবু বলেন, ‘আমার সন্তানের কী অপরাধ ছিল? কেন তাকে নির্মমভাবে হত্যা করা হলো। সাইফুলের দুই সন্তানের দিকে তো আমি তাকাতে পারছি না। আমি আমার সন্তান হত্যার দ্রুত বিচার চাই।’

অন্যান্য বক্তাগণ বলেন, ‘এই খুনের সাথে জড়িতদের দ্রুত গ্রেফতার করে বিচারের মুখোমুখি করতে হবে। এলাকার মানুষ দ্রুত বিচার দেখতে চায়।’

সাধুহাটী ইউনিয়নের চেয়ারম্যান কাজী নাজির উদ্দীন বলেন, ‘পুলিশের তৎপরতার কথা জেনেছি। তারা হত্যার ক্লু ও মোটিভ উদ্ধার করেছে বলে জানা গেছে। আমাদের দাবি, খুব দ্রুত এসব আসামী গ্রেফতার করে বিচারের মুখোমুখি করতে হবে। তবেই জনগণের আশা পূরণ হবে।’

উল্লেখ্য গত ১৮ আগস্ট সন্ধ্যার দিকে স্থানীয় বদরগঞ্জ বাজার থেকে বাড়ি ফেরার পথে হাওনঘাটা নামক স্থানে ৬/৭ জন জামগাছ কেটে ডাকাতির উদ্দেশ্যে রাস্তায় ফেলে রাখে। এসময় ডাকাতদলের সাথে সাইফুলের বাদানুবাদের এক পর্যায়ে তারা তাকে গলায় ধারালো অস্ত্র দিয়ে আঘাত করে। এতে তার মৃত্যু হয়।

আলোকিত প্রতিদিন/১৩সেপ্টেম্বর/আরএইচ

ফেসবুক থেকে মন্তব্য করুন