বাজেটের ৪৭ শতাংশ অর্থই ১০ মন্ত্রণালয়ে বরাদ্দ | আলোকিত প্রতিদিন

বাজেটের ৪৭ শতাংশ অর্থই ১০ মন্ত্রণালয়ে বরাদ্দ

Spread the love

ভোটার সম্পৃক্ততা বেশি এমন দশটি মন্ত্রণালয়কে নতুন বাজেটের সম্ভাব্য ব্যয়ের প্রায় অর্ধেকই দিয়েছেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত।

বৃহস্পতিবার জাতীয় সংসদে ৪ লাখ ৬৪ হাজার ৫৭৩ কোটি টাকার বাজেট উপস্থাপন করেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত। এর মধ্যে ২ লাখ ১৯ হাজার ৩৮১ কোটি টাকাই বরাদ্দ রাখা হয়েছে জনসম্পৃক্ত ও জাতীয় স্বার্থসংশ্লিষ্ট দশটি মন্ত্রণালয়ে।

এর মধ্যে শীর্ষে রয়েছে প্রতিরক্ষা খাত। এখাতে সম্ভাব্য বরাদ্দের পরিমাণ ২৯ হাজার ৪৭ কোটি টাকা। সর্বোচ্চ বরাদ্দের দিক থেকে দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে স্থানীয় সরকার বিভাগ এবং তৃতীয় সড়ক পরিবহন ও মহাসড়ক বিভাগ। সংশ্লিষ্ট সূত্রে পাওয়া গেছে এসব তথ্য।

বাজেট প্রস্তাব উপস্থাপন করে অর্থমন্ত্রী বলেন, বরাদ্দের অগ্রাধিকার তালিকায় আছে স্থানীয় সরকার ও পরিবহন, শিক্ষা ও বিদ্যুৎ খাত। বরাদ্দ ছাড়া বাজেটে সবচেয়ে বেশি গুরুত্ব দেয়া হচ্ছে মানবসম্পদ উন্নয়ন খাতকে।

২০১৮-১৯ অর্থবছরের বাজেটের প্রায় ৪৬ দশমিক ৮৫ শতাংশ বরাদ্দ দেয়া হয়েছে ১০টি মন্ত্রণালয়কে। চলতি বছরের তুলনায় ৩ হাজার ৩০৬ কোটি টাকা বরাদ্দ বেড়ছে প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ে।

এছাড়া দ্বিতীয় অবস্থানে থাকা স্থানীয় সরকার বিভাগের বরাদ্দ বেড়েছে ৪ হাজার ৩৪৯ কোটি টাকা এবং তৃতীয় অবস্থানে সড়ক পরিবহন ও মহাসড়ক বিভাগে বরাদ্দ বাড়ছে ৪ হাজার ৬৮৩ কোটি টাকা।

শীর্ষ বরাদ্দের দশ মন্ত্রণালয়ের মধ্যে চতুর্থ অবস্থানে আছে মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বিভাগ। এ বিভাগে সম্ভাব্য বরাদ্দ দেয়া হয়েছে ২৩ হাজার ৪৭৭ কোটি টাকা। চলতি বছরে বরাদ্দ আছে প্রায় ২৩ হাজার ১৪৮ কোটি টাকা। নতুন বাজেটে এ বিভাগে বরাদ্দ বাড়ানো হয়েছে ৩২৯ কোটি টাকা।

শীর্ষ বরাদ্দের পঞ্চম অবস্থানে রয়েছে বিদ্যুৎ বিভাগ। এ বিভাগে আগামী অর্থবছরের বাজেটে সম্ভাব্য বরাদ্দ দেয়া হয়েছে প্রায় ২২ হাজার ৯৩৬ কোটি টাকা। চলতি অর্থবছরে এখাতে ১৮ হাজার ৮৯৪ কোটি টাকা বরাদ্দ আছে। ওই হিসাবে বিদ্যুৎ খাতে বেশি বরাদ্দ রাখা হয়েছে ৪ হাজার ৪২ কোটি টাকা।

এছাড়া শীর্ষ বরাদ্দের ষষ্ঠ তালিকায় আছে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়। আসন্ন বাজেটে এ মন্ত্রণালয়ের সম্ভাব্য বরাদ্দের পরিমাণ ২২ হাজার ৪৮৮ কোটি টাকা। চলতি বাজেটে বরাদ্দের পরিমাণ ২২ হাজার ২৩ কোটি টাকা। এ হিসাবে বরাদ্দ বাড়ছে ৪৬৫ কোটি টাকা।

এদিকে নির্বাচনের বছরে জননিরাপত্তা বিভাগের ব্যয় বেড়েছে। কারণ এ বিভাগের মাধ্যমে নির্বাচন প্রস্তুতি থাকবে। যে কারণে নতুন বাজেটে জননিরাপত্তা খাতে বরাদ্দ বেড়েছে প্রায় ৩ হাজার ৪২ কোটি টাকা। নতুন বাজেটে এখাতে বরাদ্দের পরিমাণ হচ্ছে প্রায় ২১ হাজার ৩৩১ টাকা। চলতি অর্থবছরে এ খাতে বরাদ্দ আছে প্রায় ১৮ হাজার ২৮৮ কোটি টাকা।

শীর্ষ বরাদ্দের অষ্টম অবস্থানে আছে স্বাস্থ্য ও সেবা বিভাগ। এ বিভাগে নতুন বাজেটে সম্ভাব্য বরাদ্দ বাড়ানো হয়েছে ১ হাজার ৯৬৩ কোটি টাকা। স্বাস্থ্য ও সেবা বিভাগে বরাদ্দ থাকছে ১৮ হাজার ১৬৬ কোটি টাকা। চলতি অর্থবছরে এ বিভাগে বরাদ্দ আছে ১৬ হাজার ২০৩ কোটি টাকা।

এদিকে বরাদ্দের শীর্ষে নবম অবস্থানে আছে রেলপথ মন্ত্রণালয়। ২০১৮-১৯ অর্থবছরের বাজেটে রেল মন্ত্রণালয়ের বরাদ্দের পরিমাণ প্রায় ১৪ হাজার ৩৩৮ কোটি টাকা। চলতি বাজেটে বরাদ্দ আছে ১৬ হাজার ১৩৫ কোটি টাকা। সূত্র: পরিবর্তন

আলোকিত প্রতিদিন/৭জুন/আরএইচ

এই সংবাদ ২০৩ বার পঠিত।
ফেসবুক থেকে মন্তব্য করুন